মস্কোর গোটা একসারি অভিযোগ আছে মার্কিন যুক্তরাষ্ট্র ব্যাপক নরহত্যার অস্ত্র প্রসার নিরোধ এবং অস্ত্রসজ্জার নিয়ন্ত্রণ সম্পর্কে নিজের বাধ্যবাধকতা কিভাবে পালন করছে সে বিষয়ে.আজ প্রকাশিত বিশেষ দলিলে রাশিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয় মার্কিনী পক্ষের দ্বারা একসারি চুক্তি লঙ্ঘনের ঘটনা উল্লেখ করেছে. এর মধ্যে আছে- রণনৈতিক আক্রমণাত্মক অস্ত্রসজ্জা সংক্রান্ত প্রথম চুক্তি এবং মাঝারী ও স্বল্প পাল্লার রকেট ধ্বংস সংক্রান্ত চুক্তি, রাসায়নিক ও জীববৈজ্ঞানিক অস্ত্র নিষেধ সংক্রান্ত কনভেনশন এবং তাছাড়া অস্ত্র রপ্তানির নিয়ন্ত্রণ লঙ্ঘন. যেমন, রণনৈতিক আক্রমণাত্মক অস্ত্রসজ্জা সংক্রান্ত প্রথম চুক্তি বলবত্ থাকা কালে রাশিয়ার পক্ষকে জানানো হয় নি পুবের রকেট ঘাঁটির  সাবমেরিন থেকে ট্রাইডেন্ট-২ ব্যালিস্টিক রকেটের পরীক্ষা সম্পর্কে. তাছাড়া, তেজষ্ক্রিয় নিরাপত্তার ব্যবস্থা এবং তেজষ্ক্রিয় বস্তু সংরক্ষণের নিয়ম লঙ্ঘনের জন্য একসারি মার্কিনী প্রতিষ্ঠান থেকে ১৯৯৬ থেকে ২০০১ সালের মাঝে হারিয়ে গেছে প্রায় ১৫০০ আয়োনাইজড বিচ্ছুরণের উত্স. আরও জানা গেছে যে, ২০০৬ সালে লস-অ্যালামোসের ল্যাবরেটারি থেকে গোপন তথ্য অপরাধী দলগুলির হাতে পড়েছে, ঘোষণা করা হয়েছে রাশিয়ার পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ে.