সুদূর প্রাচ্যের সফরে রাশিয়ার রাষ্ট্রপতি দিমিত্রি মেদভেদেভ এশিয়া প্রশান্ত মহাসাগরীয় অর্থনৈতিক সহযোগিতা শীর্ষ বৈঠকের জন্য নির্মীয়মাণ জায়গা গুলি পর্যবেক্ষণ করেছেন, এখানে আগামী ২০১২ সালে এই অধিবেশন হতে চলেছে. একটি স্টীমারে চড়ে প্রথম যে জায়গা টিতে রাষ্ট্রপতি পর্যবেক্ষণ করতে গিয়েছিলেন, সেটি ছিল মহান পিওতর উপসাগরে সোনার শৃঙ্গ বদ্বীপ হয়ে সেতু ও রাস্তা. এই সেতু পথে সবচেয়ে কম সময়ে শহরের কেন্দ্র থেকে গড়ে ওঠা ভবিষ্যতের উপ নগরী হয়ে রুস্কি নামের দ্বীপে যাওয়ার সেতু অবধি পৌঁছনো যাবে. রাষ্ট্রপতি বিশেষ মনোযোগ দিয়ে সুদূর প্রাচ্য বিশ্ববিদ্যালয়ের নতুন তৈরী হতে যাওয়া ভবন গুলি দেখেছেন, কথা আছে যে, এশিয়া প্রশান্ত মহাসাগরীয় অর্থনৈতিক সহযোগিতা শীর্ষ বৈঠকের অধিবেশনের সময়ে এই ভবনের পড়া শোনার জন্য তৈরী হওয়া হল গুলিতে অধিবেশনের প্রধান অনুষ্ঠান গুলি হবে, আর ছাত্রাবাস গুলিতে বিভিন্ন দেশের রাষ্ট্রপ্রধান, প্রতিনিধি ও সাংবাদিকদের রাখা হবে. ভ্লাদিভস্তকে দেশের প্রধানের কেন্দ্রীয় অনুষ্ঠান হল সেখানের বর্তমানে চলা "পূর্ব দিক – ২০১০" নামের সামরিক মহড়ার পর্যবেক্ষণ করা.