ভারতীয় বিমান বাহিনীর সু-৩০ মার্কা ফাইটার বিমান ব্যবহার করে ব্রামোস মার্কা সুপারসোনিক রুশ-ভারত ক্রুইজ মিসাইলের উড্ডয়ন পরীক্ষা শুরু হবে ২০১২ সালে. এ সম্বন্ধে আজ "ইতার-তাস" সংবাদ সংস্থাকে জানিয়েছেন "ব্রামোস এয়ারোস্পেস" নামে রুশ-ভারত যৌথ প্রতিষ্ঠানের নেতা শ্রী এস. পিল্লাই. রাশিয়ার তরফ থেকে এন,পি,ও মাশিনোস্ত্রোয়েনিয়া কোম্পানির অংশগ্রহণে এই যৌথ প্রতিষ্ঠান নিজের উত্পন্ন দ্রব্য প্রদর্শন করছে যন্ত্রনির্মাণে প্রকৌশল-২০১০ নামে আন্তর্জাতিক সম্মেলনে. এই ব্রামোস মার্কা ক্রুইজ মিসাইলের সর্বাধিক দূরত্ব ২৯০ কিলোমিটার, এবং সর্বাধিক গতি ধ্বনির গতির ২.৮ গুণ বেশি, ওয়ারহেডের অংশের ওজন- ৩০০ কিলোগ্রাম পর্যন্ত. বতর্মানে বিদ্যমান সাবসোনিক ক্রুইজ মিসাইলের তুলনায় এর লক্ষ্যভেদ ক্ষমতা ৯ গুণ বেশি. বর্তমানে তা গৃহীত হয়েছে ভারতের স্থলবাহিনী ও নৌবাহিনীর অস্ত্রসজ্জায়.