রাশিয়া ও ভারত আগামী তিন মাসের মধ্যে পঞ্চম প্রজন্মের ফাইটার প্লেনের প্রকল্পের কাঠামোর বিষয়ে নথিপত্র তৈরী করার প্রোটোকল সই করবে. সামরিক প্রযুক্তি সহযোগিতা বিষয়ক জাতীয় পরিষেবার প্রধান মিখাইল দিমিত্রিয়েভ আজ এক উচ্চ স্তরের রাশিয়া- ভারত সামরিক সহযোগিতা বিষয়ক পর্যবেক্ষক কমিটির বৈঠকের শেষে বলেছেন যে, "এই প্রোটোকল সামরিক প্রযুক্তি সহযোগিতার ক্ষেত্রে এই গুরুত্বপূর্ণ ও ভবিষ্যতের প্রয়োজনীয় দিকটির বাস্তবায়নের ক্ষেত্রে এক অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ পদক্ষেপ হবে". পঞ্চম প্রজন্মের ফাইটার প্লেনের বিষয়ে সহযোগিতায় অংশ নেবে ভারতের "হিন্দুস্থান এরোনটিকস লিমিটেড" এবং সংযুক্ত বিমান নির্মাণ কর্পোরেশন. ভারতীয় সংবাদ সংস্থার উত্স থেকে পাওয়া খবরে জানা গিয়েছে যে, এই প্রকল্পের বাস্তবায়নে দুই পক্ষ থেকে সর্বমোট ৮ – ১০ বিলিয়ন ডলার বিনিয়োগ করা হবে. এই যৌথ প্রকল্প বিশেষজ্ঞদের মতে পশ্চিমের দেশ গুলির একই ধরনের প্রকল্পের তুলনায় বিনিয়োগ – সাফল্য মাপ কাঠিতে শুধু বেশী ভালই হবে না, বরং ভারত ও রাশিয়ার সামরিক ক্ষেত্রে বিমান বাহিনীর ক্ষমতা বৃদ্ধি ছাড়াও বিশ্বের আধুনিক অস্ত্রের বাজারে এক অন্যতম সম্মানের জায়গা দখল করতে পারবে. দিমিত্রিয়েভ আরও জানিয়েছেন যে, এই দ্বিপাক্ষিক পর্যবেক্ষক কমিটির মিটিংয়ে আরও একটি আলোচনার বিষয় ছিল, তা হল যৌথ ভাবে বহুমাত্রিক পরিবহন কাজের উপযুক্ত বিমান নির্মাণ করা. তাঁর কথা মতো, এই বিষয়েও আগামী তিন মাসের মধ্যে চুক্তি সই করা হবে.