বুধবার সন্ধ্যা বেলায় জাতীয় এয়ার ইন্ডিয়া কোম্পানীর বিশ হাজারেরও বেশী কর্মচারী মঙ্গলবারে ডাকা ধর্মঘট, দিল্লী হাইকোর্টের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী তুলে নিয়েছে. সরকারি প্রতিনিধির দেওয়া খবরকে উত্স করে ভারতীয় টেলিভিশন চ্যানেল গুলি এই সংবাদ দিয়েছে. বুধবার হাইকোর্ট এই ধর্মঘটকে চালিয়ে যাওয়ার বিরুদ্ধে নিষেধ সিদ্ধান্ত নিয়েছিল. সংবাদ সংস্থাদের খবর অনুযায়ী ধর্মঘটে রত কর্মীরা এই সিদ্ধান্ত মেনে নিয়েছেন. "আমরা ধর্মঘট বন্ধ করব, কিন্তু আমরা আমাদের অধিকারের জন্য লড়াই চালিয়ে যাবো" – সাংবাদিকদের কাছে এই ঘোষণা করেছেন ধর্মঘটের আয়োজক এক নেতা আনন্দ প্রকাশ. একই সময়ে এয়ার ইন্ডিয়া কোম্পানী ধর্মঘটের সূত্রে আয়োজক ১৫ জনকে বরখাস্ত করার সিদ্ধান্ত ঘোষণা করেছে. বিমান বন্দরের কর্মীদের এই ধর্মঘটে এঞ্জিনিয়ারদের পরিষেবা, বিমান সেবকদের পরিষেবা ইত্যাদি বিভাগের কর্মীরা যোগ দেওয়াতে দেশের বিমান ব্যবস্থা বিপর্যস্ত হয়েছে. বাতিল করা হয়েছে অথবা পেছিয়ে দেওয়া হয়েছে অন্ততঃ ১৩০টি উড়ান. বেশীর ভাগই এর মধ্যে আভ্যন্তরীন উড়ান. প্রায় বিশ হাজার যাত্রী এর ফলে অসুবিধায় পড়েছেন, যাদের অনেকেই এয়ারপোর্ট গুলিতে আটকা পড়েছেন.