যৌথ নিরাপত্তার চুক্তি সংস্থার তত্পর প্রতিক্রিয়ার যৌথ বাহিনীর সন্ত্রাসবিরোধী ধারার রুবেঝ-২০১০ নামে মিলিত মহড়ায় অংশগ্রহণকারী সমস্ত বাহিনীকে তার পরিচালনার জায়গায়- তাজিকিস্তানের চোরুখ-দাইরোন ঘাঁটির এলাকায় সমাবেশ করা হয়েছে. এ সম্বন্ধে ইতার-তাস সংবাদ সংস্থাকে জানিয়েছেন রাশিয়ার প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের স্থল বাহিনীর প্রেস-সার্ভিসের সরকারী প্রতিনিধি. সৈন্যবাহিনীর জন্য ব্যবস্থা করা হয়েছে ফিল্ড-ক্যাম্প, হাসপাতাল, এবং ক্রীড়া নগরী. সাংগঠনিক বৈঠকে যৌথ নিরাপত্তার চুক্তি সংস্থার ঐক্যবদ্ধ সদর দপ্তরের প্রথম উপ-অধিকর্তা জেনারেল আনাতোলি নগোভিতসিন তাজিক পক্ষের দ্বারা সাধিত প্রস্তুতিমূলক কাজের উচ্চ মূল্যায়ন করেছেন. মহড়া চলবে ২২শে থেকে ২৬শে এপ্রিল পর্যন্ত. তাতে অংশ নেবে রাশিয়া, কাজাখস্তান, কির্গিজিয়া ও তাজিকিস্তানের ৬০০ সামরিক কর্মী, আর তাছাড়া সাঁজোয়া গাড়ি, ভারী আর্টিলারী এবং হেলিকপ্টার. বেআইনী সশস্ত্র দল এবং জঙ্গীদলগুলিকে অবরোধ করা এবং ধ্বংস করার অভিয়ান অনুশীলন করা হবে. যৌথ নিরাপত্তার চুক্তি সংস্থার আরও এক সদস্য- উজবেকিস্তান বরাবরের মতো অংশগ্রহণ সীমিত রাখছে এক দল পর্যবেক্ষক পাঠিয়ে.