সোমালির জলদস্যুরা বিগত দু দিনে পাল-তোলা ও ইঞ্জিন সম্বলিত তিনটি ভারতীয় জাহাজ মুক্ত করেছে. এ সম্পর্কে আজ জানিয়েছে নাইরোবিতে অবস্থিত একোটেরা ইন্টারন্যাশানাল সংস্থা, যা সোমালির উফকূলের কাছে পরিস্থিতি মনিটরিং করছে.এই একোটেরা-র তথ্য অনুযায়ী, প্রথমে ছাড়া হয় ১৫ জন নাবিক সম্বলিত কৃষ্ণ জ্যোত নামে জাহাজকে. তা দখলিত হয়েছিল ২৮শে মার্চ সোমালির কিসমাইও বন্দরের কাছে. এর পর জলদস্যুরা মুক্ত করে আল-কাদ্রি নামে ডৌ জাহাজকে. সংস্থায় উল্লেখ করা হয়েছে, এর ১১ জন নাবিক স্বাভাবিক অনুভব করছে, তারা সকলেই বেঁচে আছে এবং সুস্থ আছে. জলদস্যুরা জাহাজের সমস্ত দিক-নির্দেশক সরঞ্জাম এবং সামান্য মূল্য আছে এমন সমস্ত কিছু লুঠ করেছে, জলদস্যুদের মুক্ত করা তৃতীয় জাহাজ হল সাফিনা আল-বায়াতিরি, যা দখলিত হয়েছিল ২রা এপ্রিল. এতে ছিল ২১ জন নাবিক. এই ডৌ জাহাজটি সোমালিল্যান্ডের বের্বেরা থেকে ওমানের সালাদায় নিয়ে যাচ্ছিল গরু-মোষ, যখন ১০ জন সশস্ত্র জলদস্যু তাদের আক্রমণ করে দ্রুতগামী নৌকোয়.