রাশিয়ার গণমৈত্রী বিশ্ববিদ্যালয় আজ প্রতিষ্ঠার ৫০ বছরের সুবর্ণ জয়ন্তী দিবস পালন করছে. বিশ্বের ১৭০ টি দেশের প্রায় সত্তর হাজারেরও বেশী ছাত্র বিগত পঞ্চাশ বছরে এই বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াশোনা করে আজ নানা জায়গায় প্রতিষ্ঠিত. বর্তমানের সবচেয়ে বিখ্যাত প্রাক্তন ছাত্র হলেন গায়ানা রাষ্ট্রের রাষ্ট্রপতি ভারত ঝাগদেও, কাজাখস্থান ও চাদের প্রধানমন্ত্রীরা, বহু দেশের মন্ত্রী ও বৃহত্ কোম্পানীর নেতৃত্ব স্থানীয় অধিকর্তারা এবং রাজদূত ও প্রফেসররা. এই বিশ্ববিদ্যালয়ের রেক্টর ভ্লাদিমির ফিলিপভ উল্লেখ করেছেন যে, এই বহু মাত্রিক বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষে সম্ভব হয়েছে, বিশ্বের নেতাদের তৈরী করার. বর্তমানে বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রায় ৪৫০ টি জাতি ও জনগোষ্ঠীর ২৮ হাজার ছাত্র পড়াশোনা করেন. বিশ্ববিদ্যালয়ে পড়াশোনা করার মূল মাধ্যম রুশ ভাষা. বিশ্ববিদ্যালয়ের বিদেশী প্রথম বর্ষের ছাত্র দের অনুবাদের অসুবিধা দূর করার জন্য অধ্যাপকেরা তাঁদের বিষয়ের উপর ভাষণের সারাংশ ছোট বই হিসাবে রুশী ভাষায় ছাপিয়ে বার করেন. বিদেশী দের রুশ ভাষা শিক্ষার জন্য বিশ্বের একটি অন্যতম শ্রেষ্ঠ স্কুল গণমৈত্রী বিশ্ববিদ্যালয়ে খোলা হয়েছে. এই বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রায় সমস্ত আন্তর্জাতিক মহাকাশ স্টেশনের বিদেশী মহাকাশচারী রুশী ভাষার পাঠ নিয়েছেন. এই বছরে হাইতি তে বিধ্বংসী ভূমিকম্পের পর বিশ্ববিদ্যালয়ে পাঠ রত ৫২ জন ছাত্র তাদের পরিবারের থেকে পড়াশোনা চালানোর অর্থ সাহায্য থেকে বঞ্চিত হয়েছে, এমতাবস্থায় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসন তত্ক্ষণাত এদের শোকের সঙ্গে সামিল হয়ে যারা অর্থের বিনিময়ে পড়ছিল তাদের সকলকে বিনা পয়সায় পড়াশোনা চালিয়ে নিয়ে যাওয়ার জন্য ব্যবস্থা করেছে এবং অভিজ্ঞ মনোরোগ বিদেরা এদের সকলকে মানসিক স্থিতি খুঁজে পেতে সাহায্য করেছেন.