নেপাল সরকারের মন্ত্রীরা আজ অক্সিজেন-মাস্ক পরে বিশ্বব্যাপী আবহাওয়া পরিবর্তনের প্রশ্নে এক বৈঠকে অংশ নেন. তাঁদের এ বৈঠক হয় সমুদ্রতল থেকে ৫২৫০ মিটার উচ্চতায়. পৃথিবীর সর্বোচ্চ পাহাড় এভারেস্টের ঢালে. মন্ত্রীরা পরেছিলেন বিশেষ পোষাক, যা এমন উচ্চতার জোর বাতাস থেকে বাঁচায় এবং গরম পশমের তৈরী মাথার টুপি. তাঁরা বৈঠকের টেবিলঅবধি ওঠেন হেলিকপ্টারে, এবং তার আগে বিশেষ মেডিক্যাল কমিশনের পরীক্ষা অতিক্রম করেন. এ কমিশন চার জন মন্ত্রীকে স্বাস্থ্যের কারণে এ সাক্ষাতে অংশগ্রহণের জন্য অযোগ্য বলে ঘোষণা করে এবং তাঁরা কাটমন্ডুতে থেকে যেতে বাধ্য হন. এভারেস্টে তাঁরা আলোচনা করেন একটি মাত্র প্রশ্ন- বিশ্বব্যাপী আবহাওয়া গরম হওয়া, হিমালয়ের হিমবাহের বিপদ এবং গোটা প্রাকৃতিক পরিবেশের জন্য বিপদ. এরকম উচ্চতায় নেপালী মন্ত্রীদের বৈঠক – প্রদর্শনমূলক অভিযান, যার উদ্দেশ্য হল গোটা মানবজাতির অমূল্য সম্পদ হিমালয়ের আবহাওয়ার সমস্যার প্রতি মনোযোগ আকর্ষণ করা. আগামী সপ্তাহে কোপেনহেগেনে আবহাওয়া পরিবর্তন সংক্রান্ত যে আন্তর্জাতিক সম্মেলন শুরু হচ্ছে তারই ভূমিকাস্বরূপ. এ সম্মেলনে আলোচনা করা হবে হিমালয় পাহাড়ে গড়ে ওঠা প্রতিকূল পরিস্থিতি, এবং সেই রকমই আলোচনা হবে বিশ্ব মহাসাগরে পরিস্থিতি সম্পর্কে.