মস্কোয় মারা গেছেন বিশিষ্ট বিজ্ঞানী, পদার্থবিদ্যায় নোবেল পুরস্কারপ্রাপ্ত, অ্যাকাডেমিশিয়ান ভিতালি গিন্সবুর্গ. তাঁর বয়স হয়েছিল ৯৩ বছর. ষাট বছরের উপর তিনি কাজ করেন বিজ্ঞান অ্যাকাডেমির পদার্থবিদ্যা ইনস্টিটিউটে, ইনস্টিটিউটের তাত্ত্বিক বিভাগের অধ্যক্ষতা করেন. তাঁর প্রধান প্রধান কাজ উত্সর্গীত রেডিও-অ্যাস্ট্রোনমি, আয়ানোস্ফিয়ারে তরঙ্গ প্রসারের তত্ত্ব, সুপার-কন্ডাক্টিভিটির তত্ত্ব, এবং অ্যাস্ট্রোফিজিক্সের প্রতি. তিনি প্রকাশ করেন প্রায় ৪০০ বৈজ্ঞানিক নিবন্ধএবং ১২টি গ্রন্থ. ২০০৩ সালে গিন্সবুর্গকে নোবেল পুরস্কারে ভূষিত করা হয় তরলের সুপার-কন্ডাক্টিভিটি ও সুপার-ফ্লুইডিটির তত্ত্বে পথ-প্রদর্শনকারী অবদানের জন্য. বিজ্ঞানীর জন্য একটি গুরুত্বপূর্ণ কর্তব্য হয়ে ওঠে মিথ্যা-বিজ্ঞানের বিরুদ্ধে সংগ্রাম. তিনি মনে করতেন যে, যেকোনো বিজ্ঞানবিরোধী ধারণা এবং খোলাখুলি তথ্য-কারসাজিরবিরুদ্ধে সুনির্দিষ্ট ও দ্ব্যর্থহীন স্থিতি গ্রহণ করা উচিত.