হান্ডুরাসে রাষ্ট্রপতির দায়িত্ব পালনকারী রবার্ট মিচেলেত্তি উত্খাত রাষ্ট্রনেতা ম্যানুয়েল সেলাইয়ার সাথে সাক্ষাতের আগ্রহ প্রকাশ করেছেন. তবে তিনি এ শর্ত পেশ করেছেন যে, সেলাইয়া যেন নভেম্বরের জন্য নির্ধারিত রাষ্ট্রপতি নির্বাচনের বিধানিকতা স্বীকার করেন. পর্যবেক্ষকরা উল্লেখ করছেন যে, সেলাইয়ার দেশে ফেরা উপলক্ষে হান্ডুরাসে পরিস্থিতি তীব্র হয়ে উঠছে. পুলিশ ও সৈন্যবাহিনী উত্খাত রাষ্ট্রপতির অবস্থান স্থল- ব্রেজিলের দূতাবাসের কাছে জমা হওয়া তাঁর কয়েক হাজার পক্ষ সমর্থককে ছত্রভঙ্গ করেছে. গ্রেপ্তার করা হয়েছে ১৭০ জনেরও বেশি লোককে, কার্ফিউর মেয়াদ বাড়ানো হয়েছে. হান্ডুরাসে রাজনৈতিক সঙ্কট দেখা দেয়, যখন রাষ্ট্রপতি ম্যানুয়েল সেলাইয়া দেশের সংবিধানে পরিবর্তন আনার প্রস্তাব করেন, যা অনুযায়ী রাষ্ট্রনেতার পুনর্নিবাচিত হওয়ার সম্ভাবনা দেখা দেবে. বিরোধীপক্ষ তাঁর বিরুদ্ধে অভিযোগ তোলে শাসন ক্ষমতা দখলের চেষ্টার.