মস্কো তথা সারা রুশ দেশের প্যাট্রিয়ার্ক কিরিল, যিনি ইউক্রেনে ১০ দিনের ধর্ম-সংক্রান্ত সফর করছেন, এ দেশের পশ্চিমাঞ্চলে রয়েছেন.এর প্রাক্কালে তাঁর পৌঁছোনোর কথা ছিল রোভনো শহরে, কিন্তু ইউক্রেনের কর্তৃপক্ষ সনির্বন্ধভাবে তাঁকে পরামর্শ দেয় সেখানে না যাওয়ার, এ নিশ্চয়োক্তি করে যে, সেখানে তারা তাঁর নিরাপত্তা সুনিশ্চিত করতে পারবে না. তার বদলে প্যাট্রিয়ার্ক কিরিল পৌঁছোন রোভনো প্রদেশের কোরেত্স শহরে, সেখানে তিনি সেন্ট-ট্রিনিটি মেয়েদের মঠ পরিদর্শন করেন. প্যাট্রিয়ার্কের সফর-সূচির এ পরিবর্তনে রোভনোর বহু বাসিন্দা দুঃখিত হয়েছে, আর প্যাট্রয়ার্ক কিরিল নিজেও, এবং তিনি এ আশা প্রকাশ করেছেন যে, এ শহরের অর্থোডক্স খৃস্টানদের সাখে সাক্ষাতের আকাঙ্ক্ষা ভবিষ্যতে পূর্ণ হবে. ইউক্রেনের পশ্চিমাঞ্চলে, যেখানে মস্কো প্যাট্রিয়ার্কির বিরোধীরা সবচেয়ে বেশি সক্রিয়, প্যাট্রিয়ার্ক কিরিল তিন দিন থাকার পরিকল্পনা করছেন. নিজের এ সফরের সময় তিনি একাধিকবার বলেছেন ইউক্রেনে চার্চের বিভাজন অতিক্রমের প্রয়োজনীয়তার কথা, যে বিভাজন সমর্থন করছে দেশের বর্তমান শাসন ব্যবস্থা.