রাশিয়া ও বাংলাদেশ আজ আণবিক শক্তির শান্তিপূর্ণ ব্যবহার সংক্রান্ত বিষয়ে দ্বিপাক্ষিক পারস্পরিক বোঝাপড়ার চুক্তি সই করতে চলেছে. বাংলাদেশের বিজ্ঞান, তথ্য প্রকৌশল ও সম্প্রচার মন্ত্রণালয়ের প্রতিনিধি হুসেইন জানিয়েছেন যে, রাশিয়ান কর্পোরেশন রসঅ্যাটমএর প্রতিনিধিরা, বাংলাদেশ আণবিক কমিশনের প্রতিনিধিদের সাথে এই চুক্তি সই করবেন. রাশিয়া ও বাংলাদেশ যৌথ প্রয়াসের খসড়া মে মাসে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ওয়াজেদের সম্মতি পাওয়ার ফলেই এই চুক্তি স্বাক্ষর বাস্তবায়িত হতে চলেছে. এই দলিলটি দ্বিপাক্ষিক সম্পর্কের বর্তমান বিষয়টি নিয়ে যৌথভাবে চর্চার ভিত্তি স্থাপন করবে. এছাড়াও এই দলিল আণবিক শক্তির শান্তিপূর্ণ ব্যবহার সংক্রান্ত বিষয়ে যৌথভাবে চর্চার চুক্তিকে আরও নিঃখূত করতে সাহায্য করবে, প্রকল্পের অংশ হিসাবে বাংলাদেশে আণবিক শক্তির পরিকাঠামো নির্মাণ এবং আণবিক শক্তি শিল্পে প্রয়োজনীয় প্রকৌশলীদের শিক্ষার ব্যবস্থাও থাকবে. উপরন্তু ভবিষ্যতে বাংলাদেশে যৌথভাবে আণবিক শক্তি উত্পাদন প্রকল্পের নির্মাণও সম্ভবপর হবে. রসঅ্যাটম এর বক্তব্য অনুসারে এই বছরের শেষের আগেই আণবিক শক্তির শান্তিপূর্ণ ব্যবহার সংক্রান্ত বিষয়ে সহযোগিতার দ্বিপাক্ষিক চুক্তি দুই সরকারের মধ্যে সই হয়ে যাবে.