মস্কো হতে লিসাবন পর্জন্ত সমগ্র ইউরোপে এই দিন গুলিতে দেখা যাচ্ছে গিওরগিয়েভ ফিতা. শত শত যুবক যেমন রাশিয়া তেমনি রাশিয়ার বাইরের শহরের রাস্তায় রাস্তায় কালো ও কমলা রং এর দাগ দেয়া ফিতার টুকরো মানুষ জনের মধ্যে বিলি করছে রুশ সৈনিকদের সম্মান করার জন্য. ফিতার রং সম্মানিত গিওরগিয়েভের যা রাশিয়ার সৈনিকরা উচ্চ মর্জাদা সম্পন্ন পদক দেয়া হয় সকল যোদ্ধাদের, বিগত কয়েক বছর যাবত সক্রিয় সকল যোদ্ধাদের সম্মানে ভূষিত করা হয়.
সাম্প্রতিক সময়ে গিওরগিয়েভ ফিতা গাড়ির এ্যান্টিনাতে দেখা যাচ্ছে, প্যারিসের রাস্তায়, দেখা যাচ্ছে মাদ্রিদের রাস্তায় পুরুষের কোটের কোনায় ও মহিলাদের ব্যাগের সাথে আটকানো. এবং এই ফিতা চোখে পড়বে লন্ডনের স্কুল ছাত্রদের বই এর ব্যাগের সাথে আটকানো. সুইডেন ও ডেনমার্কের ওরগানাইজরা রাশিয়ার দূতাবাসে অতিরিক্ত ফিতার জন্য অনুরোধ জানিয়েছে. মস্কো হতে যে পরিমান ফিতা পাঠান হয়েছিল তা সবাইকে বিতরন করা শেষ হয়েছে. স্লভেকিয়া ও চেকিয়াতে ইন্টারনেটের বিশেষ সাইট তৈরী করা হয়েছে. যাতে যে কেও এই ফিতার জন্য যোগাযোগ করতে পারে. গত বছর এই ধরনের ফিতা বিতরন এসব দেশে সফলতার সাথে শেষ হয়েছিল- রাশিয়ার দূতাবাসের অনুপ্রেরনায় শুধু ব্রাতিশ্লাভ শহরেই নয় বরং চেকিয়ার সৈনিক দেশপ্রেমিক ক্লাবের শহর ব্রনেওতেও. পর্তুগালের লিসাবনে এই গিওরগিয়েভ ফিতা রুশ সাংস্কৃতিক কেন্দ্র ও সেখানকার প্রবাসিরা বিতরন করেছে.
তবে সবচেয়ে বেশি ফিতা বিতরন হয়েছে মস্কোতে জানিয়েছেন এ সংস্থার অন্যতম সাংগঠনিক ওলগা ইলুখিনা. তিনি বলেন এটা খুব আনন্দের যে যখন কোন মস্কোবাসি দেশের বাইরে যাওয়ার সময় এ গিওরগিয়েভ ফিতা নিয়ে যায়, যা ছোট একটি ফিতার টুকরা বিজয়ের আনন্দে বহিঃগমন করে এবং এর মাধ্যমে তারা তাকে আন্তর্জাতিক পর্জায়ে নিয়ে যাচ্ছে. অনেক যুবক ও কিশোর আমাদের কাছে প্রস্তাব নিয়ে আসে নিজেদের ইচ্ছায় এই ফিতা বিতরনের রাশিয়ার বিছিন্ন শহরের রাস্তায় রাস্তায়. এই ধরনের কার্জক্রম খুবই ইন্টারেস্টিং ও প্রয়োজনীয় এবং এর মাধ্যমে শত শত হাজার হাজার লোক বিজয় উত্সবের ভাগাভাগিতে মিলিত হয়েছেন. আমি অনেকবারই পর্জবেক্ষন করেছি যে এই ফিতা তাকে অপর জনের কাছ দেখে একে অপরের সাথে আনন্দে হাসাহাসি করছে এবং তাদের আনন্দ বিনিময় করছে, বল্লেন ওলগা ইলুখিনা.
রেডিও রাশিয়ার শ্রোতারাও এই গিওরগিয়েভ ফিতার বিতরনের বা আদান প্রদানের মাধ্যমে বিজয়ের আনন্দের সাথে অংশীদার হতে চাইলে আমাদের  7(495)9506944  এর মাধ্যমে অথবা ওয়েভ সাইট 9may.ruvr.ru মাধ্যমে জানাতে পারবেন কোন কোন দেশের কোথায় গিওরগিয়েভ ফিতা পাওয়া যাবে. এবং এখানে আপনাদের মূল্যবান মত বিনিময়ও করতে পারবেন, দ্বিতীয়ত বিশ্বযুদ্ধের স্মরনীয় দিন গুলির কথা স্মরন করে.